স্পর্শমাত্র

তুমি যদি স্পর্শ করো
প্রজ্জ্বলিত হয়ে উঠি এখনো আবার
অপার বিস্ময়ে যেন দ্রবীভূত মাখামাখি স্বপ্ন-হাওয়া বয়

তুমি যদি স্পর্শ করো
মুগ্ধবোধ ছড়া কাটে বাতাসে বিধুর গাছ প্রণয়ের
ছলকায় গান গায় নদীতে নাব্য জল প্রাথমিক প্রেমের আধার

তুমি যদি স্পর্শ করো
অকস্মাৎ বাথানে গোধন ডাকে হাম্বারবে আবেগী কাঁপন
প্রক্ষেপিত ডাকে যেন রঙ বদলায় সজলে কিঞ্জলে কার যেন
ভুলে হাওয়া ছান্দসিক দেহ লতিকার

তুমি যদি স্পর্শ করো
শরীরের স্বরবৃত্তে শিহরিত বেদনা বাজে বুকে
আজীবন ধরে রাখা সব স্বপ্নগান সব খেলাধুলা
ঘৃণাচ্ছলে ফেলে দেই দূরে।

তুমি যদি স্পর্শ করো আমাকে আবার
খোদার কসম আমি পুনর্বার চতুর্দিকে কবিতা ছড়াবো।